মৃত্যুর ৩৩ বছরের কালজয়ী গীতিকার নজরুল ইসলাম বাবু

0
127

এস.এ.এম.সুমন
সব কটা জানালা খুলে দাও না, একটি বাংলাদেশ তুমি জাগ্রত জনতা, আমায় গেঁথে দাও না মাগো, দুই ভুবনের দুই বাসিন্দা বন্ধু চিরকাল, কথা বলব না বলেছি, পৃথিবীতে প্রেম বলে কিছু নেই, কাঠ পুড়লে কয়লা হয়, ডাকে পাখি খোলো আঁখি, এই অন্তরে তুমি ছাড়া নেই কারও নাম, আমার মনের আকাশে আজ জ্বলে শুকতারা, তোমার হয়ে গেছি আমি, কাল সারা রাত ছিল স্বপনের রাত, কত যে তোমাকে বেসেছি ভালো ইত্যাদি গান শুনলে আজও নস্টালজিক হন শ্রোতারা। হৃদয়ে ভর করে অন্যরকম ভালোলাগার অনুভূতি। গানগুলো সবার চেনা, কিন্তু এ গানগুলোর গীতিকারকে চেনেন কজন?

এসব গানের গীতিকার নজরুল ইসলাম বাবু। ছিলেন একজন বীর মুক্তিযোদ্ধাও। মাত্র ১১৩টির মতো নাকি গান লিখেছেন তিনি। তার বেশিরভাগই কালজয়ী। ভাবা যায়! অকালমৃত্যু তাকে নতুন প্রজন্মের কাছে বিস্মৃত করেছে বটে, তবে তার লেখা গান দিয়ে চিরকাল সব প্রজন্মের শ্রোতার মনের মন্দিরে পূজিত হবেন তাতে সন্দেহ নেই।

নজরুল ইসলাম বাবু ১৯৪৯ সালের ১৭ জুলাই জামালপুরের মাদারগঞ্জ উপজেলার চরনগর গ্রামে মাতুলালয়ে জন্মগ্রহণ করেন। তার পৈতৃকবাড়ি একই উপজেলার হেমাড়াবাড়ী গ্রামে। ১৯৯০ সালের ১৪ সেপ্টেম্বর ঢাকায় ইন্তেকাল করেন তিনি। বয়স ছিল মাত্র ৪১ বছর। এই গুণীর মৃত্যুবার্ষিকী আসলে কেও মনে রাখেনা।

মৃত্যুর তিন দশক পর ২০২২ সালে রাষ্ট্র এই মেধাবী গীতিকারকে একুশে পদক প্রদান করে।
এই কিংবদন্তির জন্য শ্রদ্ধাঞ্জলি

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here